Saturday, May 31, 2014

পাতাঠুঁটি ধনেশ বাংলাদেশের অনিয়মিত পাখি



দ্বিপদ নাম: Rhyticeros undulatus
পাতাঠুঁটি ধনেশ, ফটো: ইংরেজি উইকিপিডিয়া থেকে
সমনাম: Buceros undulatus Shaw, 1811
বাংলা নাম: পাতাঠুঁটি ধনেশ
ইংরেজি নাম: Wreathed Hornbill.

জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্যKingdom: Animalia
বিভাগ/Phylum: Chordata
শ্রেণী/Class: Aves
পরিবার/Family: Bucerotidae
গণ/Genus: Rhyticeros, Reichenbach, 1849;
প্রজাতি/Species: Rhyticeros undulatus (Shaw, 1811)
ভূমিকা: বাংলাদেশের পাখির তালিকাRhyticeros গণে বাংলাদেশে রয়েছে এর ১টি প্রজাতি এবং পৃথিবীতে ৫টি প্রজাতি। বাংলাদেশে প্রাপ্ত প্রজাতিটি হচ্ছে আমাদের আলোচ্য পাতাঠুঁটি ধনেশ
বর্ণনা: পাতাঠুঁটি ধনেশ গলায় হলদে থলে লাগানো বৃক্ষচারী পাখি (দৈর্ঘ্য ৮০ সেমি, ডানা ৪৮ সেমি, ঠোঁট ১৯.৫ সেমি, পা ৬.৫ সেমি, লেজ ১৪ সেমি)ছেলে মেয়েপাখির চেহারায় কিছু পার্থক্য আছেছেলেপাখির মাথার চাঁদি ও ঘাড় লালচে; মাথার পাশ সাদাটে; ঘাড়ের উপরিভাগ পীতাভ-সাদা ও পালকহীন উজ্জ্বল হলুদ ঠোঁটের নিচের থলেতে আড়াআড়ি কালো ফেটা রয়েছে; সাদা লেজ ছাড়া দেহের বাকি অংশ চকচকে কালো; চোখ রক্তলাল ও চোখের পাশের চামড়া ইটের মত লাল; মোম-হলুদ ঠোঁটের গোড়ার দিকে অনুজ্জ্বল গোলাপি ও কালচে লাল ঢেউখেলানো মেয়েপাখির কালো মাথা ও ঘাড়; ঠোঁটের নিচের নীল থলে, বাদামি বা ধূসর-বাদামি চোখ ও লালচে হলুদ ঠোঁটছেলে মেয়ে উভয়েরই পা ও পায়ের পাতা সবুজে বা কালচে-স্লেট রঙেরঅপ্রাপ্তবয়স্ক পাখির ফ্যাকাসে নীল চোখ ও ঢেউহীন ঠোঁট ছাড়া চেহারা প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষপাখির মত
স্বভাব: পাতাঠুঁটি ধনেশ চিরসবুজ বনের কিনারায় বিচরণ করে; জোড়ায় বা ছোট দলে দেখা যায়এরা ফলদ গাছে খাবার খায়খাবার তালিকায় প্রধানত রয়েছে রসালো ফল; কখনও কখনও টিকটিকি ও অন্য ছোট প্রাণীও খেয়ে থাকেগাছ থেকে গাছে ওড়ার সময় এরা ডাকে: উক-হর্য়িক..এপ্রিল-মে মাসে প্রজনন ঋতু; পূর্বরাগে ছেলেপাখিরা লেজ ওঠানামা করে, ঠোঁট নাড়ায় ও কর্কশ কণ্ঠে গানগায়; এবং বনের উঁচু গাছের কোটরে বাসা বাঁধেমেয়েপাখি ২টি সাদা ডিম পাড়ে, ডিমের মাপ ৬.৩×৪.২ সেমিডিম পাড়া শুরু হলে ছেলেপাখি কাদার প্রলেপ দিয়ে বাসার প্রবেশ-পথ সরু করে; ডিমে তা দেওয়া থেকে ছানা বড় হওয়া পর্যন্ত মেয়েপাখি বাসার ভেতরে থাকে; বাসার মুখের সরু ছিদ্র দিয়ে পুরুষপাখি পুরো পরিবারের খাবার সরবরাহ করে
বিস্তৃতি: পাতাঠুঁটি ধনেশ বাংলাদেশের অনিয়মিত পাখি; চট্রগাম বিভাগে দেখা গেছে বলে তথ্য আছে; অতীতে আবাসিক পাখি ছিল; প্রধানত চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের চিরসবুজ বনে পাওয়া যেতভারত, ভুটান, থাইল্যান্ড, ইন্দোচীন, মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়াসহ দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় এর বৈশ্বিক বিস্তৃতি রয়েছে
অবস্থা: পাতাঠুঁটি ধনেশ বিশ্বে বিপদমুক্ত ও বাংলাদেশে অপ্রতুল-তথ্য শ্রেণিতে রয়েছেবাংলাদেশের বন্যপ্রাণী আইনে এ প্রজাতি সংরক্ষিত
বিবিধ: পাতাঠুঁটি ধনেশ পাখির বৈজ্ঞানিক নামের অর্থ ঢেউ-খেলানো শিঙ (গ্রিক: rutis = রেখা, akeros = শিঙ; ল্যাটিন: undulates = ঢেউ খেলানো)
বাংলাদেশ উদ্ভিদ প্রাণী জ্ঞানকোষে এই নিবন্ধটির লেখক ইনাম আল হক ও মো: শাহরিয়ার মাহমুদ


আরো পড়ুন:

. বাংলাদেশের পাখির তালিকা 

. বাংলাদেশের স্তন্যপায়ী প্রাণীর তালিকা

৩. বাংলাদেশের ঔষধি উদ্ভিদের একটি বিস্তারিত পাঠ

No comments:

Post a Comment