Monday, January 11, 2021

শিক্ষা বিষয়ক অনলাইন ফুলকিবাজ ডট কম চালু হয়েছে


fulkibaz.com

 নতুন বছর ২০২০ খ্রিস্টাব্দের ৮ জানুয়ারি
ফুলকিবাজ (ইংরেজি: fulkibaz.com) নামের একটি শিক্ষা বিষয়ক অনলাইন পাঠকের সামনে এসেছে। অনলাইনটি গত ৪ জানুয়ারি ২০২০ থেকে পরীক্ষামূলকভাবে চালু হয়ে তাদের কার্যক্রম প্রচার করছে। অনলাইনটিতে মোট ৭টি ক্যটাগরী বা বিষয়শ্রেণি রাখা হয়েছে। বিষয়শ্রেণিগুলো হচ্ছে সাহিত্য, রাষ্ট্রবিজ্ঞান, ইতিহাস, অর্থশাস্ত্র, দর্শন, সংস্কৃতি ও জীবনী। ইতিমধ্যেই ফুলকিবাজে বিশের অধিক লেখা প্রকাশ করা হয়েছে।

সাতটি বিষয়শ্রেণিতে বিভক্ত অনলাইনটি মূলত উচ্চ শিক্ষার সামাজিক বিজ্ঞান বিষয়ের সকল ক্ষেত্রকে সামনে নিয়ে আসতে চায়। বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক-রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটকে সামনে রেখে অনলাইনটিতে সেই ধরনের বিষয়শ্রেণি অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। বিষয়গুলো সম্পর্কে সাধারণ প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের ধারণা থাকলেও উচ্চ শিক্ষায় এসব বিষয়ে মনোযোগ কম দেয়া হয়। এই সাতটি বিষয়ের মধ্যে আটটি বাংলাদেশের শিক্ষা ব্যবস্থায় দাপটের সাথে বিরাজ করলেও সংগীত এবং চলচ্চিত্রের স্থান তেমন নেই। সংস্কৃতি বিষয় শ্রেণিতে সংগীত ও চলচ্চিত্রের লেখাসমূহ প্রকাশ হবে বলে সম্পাদক দোলন প্রভা আমাদের জানিয়েছেন।

সংগীত এবং চলচ্চিত্রও আমাদের শিক্ষা ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখতে পারে বলে মনে করেন এই অনলাইনের সম্পাদক। তিনি উল্লেখ করেছেন যে, এই দুটি বিষয় যেমন জ্ঞান প্রচার ও জনমত তৈরির ক্ষেত্রে কাজে লাগে, তেমনি বিষয় দুটির বিশাল বাজার সারা বিশ্বেই রয়েছে। তাই আমরা এই বিষয় দুটিকে আমাদের বিষয় শ্রেণিতে যুক্ত করেছি

ফুলকিবাজের সম্পাদক দোলন প্রভা ৩ অক্টোবর ২০১৭ থেকে রোদ্দুরে ডট কম সম্পাদনা করে আসছেন। নতুন এই অনলাইনটি নিয়ে তিনি যথেষ্ট আশাবাদী। তিনি আরো উল্লেখ করেন যে, রোদ্দুরে ডট কমে বহু বিষয় অন্তর্ভুক্ত থাকায় এটি পাঠকদের কাছে নির্দিষ্ট কয়েকটি বিষয় যথাযথ মনোযোগের সাথে তুলে ধরতে পারছিল না। ফুলকিবাজ ডট কম প্রত্যাশা করে, পাঠকের কাছে শিক্ষা, পাঠ এবং গবেষণার বহু বিষয় যথাযথভাবে তুলে ধরতে পারবে।

অনুপ সাদি নতুন অনলাইন ফুলকিবাজের অন্যতম লেখক। এছাড়াও রোদ্দুরে ডট কমের অনেক লেখক ফুলকিবাজ ডট কমেও লিখতে সম্মতি প্রদান করেছেন। এনামূল হক পলাশ, পূরবী সম্মানিত ও ইভান অরক্ষিত এই নতুন শিক্ষা বিষয়ক অনলাইনে নিয়মিত লিখবেন। এছাড়াও ধ্রুপদী ধারার অনেক লেখকের লেখাও ফুলকিবাজে প্রকাশ করা হবে।

ফুলকিবাজের সকল শুভানুধ্যায়ী, সমর্থক, অনুসারী ও লেখকদের কাছে পাঠকের প্রত্যাশা সবচেয়ে গুরুত্ব পাবে। জনগণের শিক্ষার ধারায় বৈপ্লবিক পরিবর্তন আনতে ফুলকিবাজ অঙ্গীকারবদ্ধ। ফুলকিবাজ আশা করে, এই অনলাইনটি পাঠকদের প্রতিদিনের সঙ্গী হবে। পাঠকগণ সপ্তাহে একদিন হলেও তাদের জ্ঞানের ক্ষুধা মেটাতে এখানে হাজির হবেন।

Sunday, November 30, 2014

পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি বাংলাদেশের সুলভ আবাসিক স্তন্যপায়ী




পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি, ফটো: Sourav Mahmud

বাংলা নাম: পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি
ইংরেজি নাম: Five-striped Palm Squirrel, Northern Indian Palm Squirrel.
বৈজ্ঞানিক নাম: Funambulus pennantii
সমনাম:  

জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য Kingdom: Animalia
বিভাগ/ Phylum: Chordata
শ্রেণী/ Class: Mammalia
বর্গ/ Order: Rodenta
পরিবার/Family: Sciuridae,
গণ/ Genus: Funambulus, Lesson, 1835;
প্রজাতি/ Species: Funambulus pennantii (Wroughton, 1905)
ভূমিকা: বাংলাদেশের স্তন্যপায়ীদের মধ্যে পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি দীর্ঘ ও সরু দেহের একটি প্রাণি।
বর্ণনা: পাঁচডোরা কাঠবিড়ালির দেহের পশম ঘন সন্নিবিষ্ট এবং লেজও ঘন ঝোপযুক্ত। মাথা প্রশস্ত গোলাকার, চোখ বড় এবং কান স্পষ্ট ও ত্রিকোণাকার।  
স্বভাব: পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি দিবাচর, বৃক্ষবাসী ও ভূচর স্তন্যপায়ী প্রাণী।
বিস্তৃতি: পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি বাংলাদেশের সুলভ আবাসিক প্রাণিবাংলাদেশ ছাড়া এরা ভারতের উত্তরাঞ্চল ও পশ্চিমবঙ্গ এবং নেপালে বিস্তৃত। আন্দামান ও নিকোবর দ্বীপপুঞ্জ এবং অস্ট্রেলিয়ায় এর অনুপ্রবেশ লক্ষ্য করা গেছে।
অবস্থা: পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি বাংলাদেশে সুলভ ও বিশ্বে কম শঙ্কাহীন বলে বিবেচিত।
বিবিধ: পাঁচডোরা কাঠবিড়ালি অনুপ্রবেশিত যোগ্য কোনো বৃক্ষ কিংবা দালানে আশ্রয় নেয়। এর প্রাকৃতিক খাদ্যের অপ্রযাপ্ততা রয়েছে।

আরো পড়ুন:

. বাংলাদেশের পাখির তালিকা 

. বাংলাদেশের স্তন্যপায়ী প্রাণীর তালিকা

৩. বাংলাদেশের ঔষধি উদ্ভিদের একটি বিস্তারিত পাঠ

৪. বাংলাদেশের ফলবৈচিত্র্যের একটি বিস্তারিত পাঠ

Tuesday, October 21, 2014

কাউয়াঠুকরি বাংলাদেশের সুলভ জলজ উদ্ভিদ




কাউয়াঠুকরি, ফটো: তাপস বর্ধন
বৈজ্ঞানিক নাম: Sagittaria guayanensis
সমনাম:
বাংলা নাম: কাউয়াঠুকরি, শালুক ঘাস, মুয়া মিয়া
ইংরেজি নাম: Guayanese Arrowhead

জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য: Plantae - Plants
অবিন্যসিত: Angiosperms
অবিন্যসিত: Monocots
বর্গ: Alismatales
পরিবার: Alismataceae
গণ: Sagittaria
প্রজাতি: Sagittaria guayanensis. Kunth ১৮১৬
পরিচিতি: কাউয়াঠুকরি হচ্ছে জলজ উদ্ভিদ। এদের ফুল সাদা ভিতরে পাপড়ির গোঁড়ার দিকে গাঢ় মেরুন ফুল গন্ধ হীনফুল আনুমানিক ৪ সেঃমিঃ হতে ৫ সেমি আকৃতির। দেখতে খুব সুন্দর ফল হয়, আকৃতিতে ২/৩ সেঃমিঃ ফুল ফোটে আগস্ট হতে নভেম্বর পর্যন্ত। এদের পুরুষ এবং স্ত্রী ফুল হয় স্কেপের আগার দিকে পুরুষ ফুল এবং নিচের দিকে উভলিঙ্গিক ফুল হয়এ বৈশিষ্ট্য দেখে সহজেই কাউয়াঠুকরি শনাক্ত করা যায়
এই উদ্ভিদ কিউবা, বাংলাদেশ, সুদান, পশ্চিম আফ্রিকা, ভারত, নেপালসহ এশিয়া ও আফ্রিকার অনেক দেশে জন্মে। ১৯৬৯ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের লুইজিয়ানা থেকে প্রাপ্তির খবরের পূর্বে সেদেশেও অজানা ছিল


আরো পড়ুন:

. বাংলাদেশের ঔষধি উদ্ভিদের একটি বিস্তারিত পাঠ

. বাংলাদেশের পাখির তালিকা 

৪. বাংলাদেশের স্তন্যপায়ী প্রাণীর তালিকা

Monday, July 28, 2014

উলটকম্বল বাংলাদেশ ভারতের ঔষধি উদ্ভিদ



উলটকম্বল
বাংলা নাম: লটকম্বল বা উল্টোকমল
বৈজ্ঞানিক নাম: Abroma augusta
ইংরেজি নাম: Devil's cotton.
আদিবাসি নাম:

জীববৈজ্ঞানিক শ্রেণীবিন্যাস
জগৎ/রাজ্য: Plantae - Plants
বর্গ: Malvales
পরিবার: Malvaceae
গণ: Abroma L.
প্রজাতি: Abroma augusta L.
পরিচিতি: এটি অস্বাভাবিক দেখতে এক ধরনের গাছ। পাতা, ছাল, কাণ্ড, মূল, ঋতুস্রাব, গনরিয়া, ডায়াবেটিস, ত্বকের সংক্রমণে এবং ফোঁড়ায় ব্যবহৃত হয় এটা ভেষজ গাছ এই গাছের পাতা, বৃন্ত বা ছোট শাখা জলে সরারাত ভিজিয়ে রেখে সকালে জেলির মতো নির্যাস অনেকেই খায়। কোস্ট কাঠিন্যের মতো রোগে কাজ করে। এই ঘন নির্যাস মাথায় দিলে মাথা ঠান্ডা থাকে। নারীদের যোনিপথের সংক্রমণে কাজে লাগে।
বিস্তৃতি: এটি মূলত বাংলাদেশ ও ভারতের উষ্ণঅঞ্চলের উদ্ভিদ।

আরো পড়ুন:
৪. বাংলাদেশের পাখির তালিকা

জনপ্রিয় দশটি লেখা, গত সাত দিনের